,


সংবাদ শিরোনাম:
«» ধর্মপাশা চেয়ারম্যান কতৃক শিতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ উপস্থিত এম পি রতন «» গোলাপগঞ্জের পৌর এলাকায় পল্লী বিদ্যুতের উদ্যোগে উঠান বৈঠক অনুষ্ঠিত «» প্রথম পর্যায়ে ১০ হাজার ৭৮৯ রাজাকারের তালিকা প্রকাশ «» মধ্যনগর রামধানা ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট কতৃক মসজিদ নির্মাণ  «» সিলেট থিয়েটার মুরারিচাঁদ আয়োজিত ” পথ নাটক ও সাংস্কৃতিক উৎসব ” সম্পন্ন «» তাহিরপুরে লেপ-তোষকের দোকানে অগ্নিকান্ডে দুই লাখ টাকার ক্ষয় ক্ষতি «» তাহিরপুরে সবজি চাষ করে স্বাবলম্বী হচ্ছেন বেকাররা «» শাবি শিক্ষার্থীদের পাটকল শ্রমিকের ১১ দফা আদায়ে মৌনমিছিল ও মানববন্ধন «» শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশবিদ্যালয়:- প্রেস বিজ্ঞপ্তি «» মধ্যনগর বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে এম পি রতন এর বিনম্র শ্রদ্ধা’র’ মিছিল

শাবিতে আবরার হত্যার বিচারের দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ

শাবিতে আবরার হত্যার বিচারের দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ

 

হাবিবুল হাসান, শাবিপ্রবি প্রতিনিধি:

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে (২১) পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (শাবি) মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছেন সাধারণ শিক্ষার্থীরা। সোমবার বিকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে এই কর্মসূচি পালন করে।

সোমবার বিকাল সাড়ে তিনটার দিকে শাবির প্রধান ফটকের সামনে আবরার হত্যার ঘটনায় মানববন্ধন আয়োজন করা হয়। মানববন্ধন পরবর্তী একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। মিছিলটি প্রধান ফটক থেকে শুরু হয়ে সিলেট-সুনামগঞ্জ মহাসড়ক ধরে সিলেট নগরীর সুরমা আবাসিক এলাকার গেট প্রদক্ষিণ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের ফটকের সামনে এসে বিক্ষোভ সমাবেশে মিলিত হয়।

বিক্ষোভ সমাবেশে সাধারণ শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে তৌহিদুজ্জামান জুয়েল, নোমান খন্দকার এবং মেহরাব হাসান বক্তব্য রাখেন।

বক্তব্যে বলা হয়, ক্ষমতাসীন ছাত্র সংগঠন আজকে ক্যাম্পাসে ক্যাম্পাসে যে দখলদারিত্ব, ভয়ের রাজত্ব কায়েম করছে তারই ধারাবাহিকতায় এই হত্যাকাণ্ড। ভারতের সাথে অসম চুক্তির বিষয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেয়ার কারণেই যে আবরারকে ডেকে নেয়া হয়েছিল তা অনেকটা স্পষ্ট এবং তার ফলেই তাকে নির্যাতন করে হত্যা করা হয়েছে। এই হত্যায় জড়িত ছাত্রলীগের সন্ত্রাসীদের অবিলম্বে গ্রেফতার করে কঠোর শাস্তি দিতে হবে জানা যায়, রোববার রাত আটটার দিকে একদল ছাত্র আবরারকে তার রুম থেকে ডেকে নিয়ে যায়।

 

পরে রাত দুইটার দিকে শেরে বাংলা হলের প্রথমতলা ও দ্বিতীয়তলার মাঝামাঝি জায়গায় ফাহাদের মরদেহ দেখতে পায় অন্য শিক্ষার্থীরা। তার শরীরে আঘাতের চিহ্ন লক্ষ্য করা গেছে। বুয়েটের ইলেকট্রিকাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং (ইইই) বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী এবং শের-ই-বাংলা হলের আবাসিক ছাত্র আবরার ফাহাদকে (২১) সোমবার রাত ৩টার দিকে মৃত ঘোষণা করেন বুয়েটের মেডিকেল অফিসার ডা. মো. মাশুক এলাহী। শিক্ষার্থীদের ধারণা ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

Share

Comments are closed.